Breaking

Translate

Monday, 18 March 2019

১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার ২০১৮ প্রকাশিত | আবেদন শেষ পরীক্ষা এপ্রিলে

শিক্ষক_নিবন্ধন_পরীক্ষা

শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার ২০১৮ প্রকাশিত হয়েছে।প্রিলিমিনারি পরীক্ষা ১৯ শে এপ্রিল




শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার ২০১৮ প্রকাশ করেছে NTRCA।এটি ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার। শিক্ষক নিবন্ধন ২০১৮ সম্পর্কে কালের কন্ঠ পত্রিকার পক্ষ থেকে এনটিআরসিএ চেয়ারম্যান এস এম আশফাক হুসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি পত্রিকাটিকে জানিয়েছিলেন ডিসেম্বর ২০১৮ এর প্রথম সপ্তাহেই প্রকাশিত হবে ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার।বলা হয়েছিলো বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের সাথে সাথেই আবেদন প্রক্রিয়া সহ বিস্তারিত আলোচনা করা হবে আমাদের সমকাল ব্লগে।

এদিকে ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা ২০১৮ এর প্রিলিমিনারি ও লিখিত পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে।স্কুল ও স্কুল ২ এর প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১৯ এপ্রিল ২০১৯ শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত।কলেজ পর্যায়ের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে একই দিনে বিকেল ৩টা থেকে ৪টা পর্যন্ত।নিচে বিজ্ঞপ্তিটি দেয়া হয়েছে।বিস্তারিত দেখুন ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিতে।

বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ২০১৮ বিজ্ঞপ্তি

২৮শে নভেম্বর ২০১৮ পঞ্চদশ শিক্ষক নিবন্ধনের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কতৃপক্ষ ntrca। বলা হয়েছে ৫ই ডিসেম্বর বিকেল ৩.০০ থেকে ২৬শে ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬.০০ পর্যন্ত চলবে আবেদন প্রক্রিয়া। আবেদন ফী নির্ধারণ করা হয়েছে ৩৫০ টাকা। আবেদনের নিয়ম বিস্তারিত বর্ণনা করা হয়েছে বিজ্ঞপ্তিটিতে। এনটিআরসিএ অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন বিজ্ঞপ্তি ডাউনলোড করে নিন।

শিক্ষক নিবন্ধন রেজাল্ট ১৪তম

এদিকে মঙ্গলবার ২৭ নভেম্বর প্রকাশিত হয়েছে ১৪তম নিবন্ধনের চূড়ান্ত মৌখিক পরীক্ষার ফলাফল।এতে ১৮ হাজার ৩১২ জন প্রার্থী উত্তীর্ণ হয়েছেন। উত্তীর্ণদের মধ্যে রয়েছেন স্কুল পর্যায়ে ১৪ হাজার ১৭৮ জন, স্কুল-২ পর্যায়ে ৫৫৪ জন  এবং কলেজ পর্যায়ে ৩ হাজার ৫৮০ জন।শুরু হয়েছে ১৪তম নিবন্ধন পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের সনদপত্র বিতরণ।এনটিআরসিএ অফিস থেকে সনদপত্রগুলো জেলা শিক্ষা অফিসগুলোতে পাঠানো হচ্ছে।সনদপত্র সংগ্রহ করতে নিবন্ধনকারীদের অবশ্যই সকল একাডেমিক সার্টিফিকেট, নিবন্ধন পরীক্ষার তিনটি প্রবেশপত্র এবং ভোটার আইডি কার্ড সঙ্গে নিতে হবে।সরাসরি জেলা শিক্ষা অফিসে উপস্থিত হয়ে নিবন্ধন সার্টিফিকেট সংগ্রহ করতে হবে।

১২তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা থেকে নিবন্ধন পরীক্ষায় কিছু পরিবর্তন এনেছে এনটিআরসিএ। এর পূর্বে প্রিলিমিনারি এবং লিখিত পরীক্ষা একদিনে এবং এক সঙ্গেই নেয়া হতো।




শিক্ষক নিবন্ধন ২০১৮ পরীক্ষা পদ্ধতি

১২তম নিবন্ধন পরীক্ষা থেকে প্রিলিমিনারি এবং লিখিত পরীক্ষা আলাদাভাবে নেয়া হচ্ছে। বিসিএসের আদলে প্রথমে ১০০ নম্বরের প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় পাস করতে হয়। এরপর লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ পাওয়া যায়। আবার ১৩তম নিবন্ধন পরীক্ষা থেকে প্রিলিমিনারি, লিখিত পরীক্ষার পর আবার ভাইবা বা মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়া বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। নতুন নিয়ম অনুযায়ী প্রিলিমিনারি, লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পরই পাওয়া যাবে নিবন্ধনের চূড়ান্ত সনদপত্র।বেসরকারি এমপিওভুক্ত অথবা নন এমপিও স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসায় শিক্ষক পদে চাকুরী করতে হলে NTRCA প্রদত্ত এই নিবন্ধন সনদপত্র অর্জন করা বাধ্যতামূলক।

বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়াতেও এসেছে ব্যাপক পরিবর্তন। পূর্বে এসব প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগ দেয়ার চূড়ান্ত এক্তিয়ার ছিলো প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজিং কমিটির হাতে। বর্তমানে ২০১৬ সাল থেকে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগের সুপারিশের ক্ষমতা দেয়া হয়েছে এনটিআরসিএ 'র কাছে।





নিবন্ধন পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে তৈরি  মেধাতালিকা অনুযায়ী নিয়োগের সুপারিশ করবে NTRCA। এজন্য নিবন্ধন পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বর এখন বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক হওয়ার জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের সম্পূর্ণ প্রক্রিয়াটি জানতে পড়ুনঃ

এজন্য বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক হতে চাইলে নিবন্ধন পরীক্ষায় ভালো নম্বর পাওয়ার জন্য পরিপূর্ণ প্রস্তুতির প্রয়োজন।নিবন্ধন পরীক্ষার প্রস্তুতিতে সহায়তার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে বিস্তারিত গাইডলাইন প্রকাশ করা হবে যদি আপনারা চান।এজন্য কমেন্ট করে আপনার মতামত জানাতে পারেন।নিবন্ধন পরীক্ষা এবং বেসরকারি শিক্ষক নিয়োগের সর্বশেষ তথ্য জানতে নিয়মিত আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন।আমাদের পরামর্শ হলো যারা ১৫তম নিবন্ধন পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে চান তারা আবেদনের শেষ তারিখ অর্থাৎ ২৬শে ডিসেম্বরের অপেক্ষা না করে যত দ্রুত সম্ভব আবেদন করে ফেলুন।কারণ অতীতের অভিজ্ঞতা থেকে জানা যায় ntrca এর ওয়েবসাইট অনেকসময় ডাউন হয়ে যায়।ফলে চাইলেও নিজের ইচ্ছেমত সময়ে আবেদন করা সম্ভব নাও হতে পারে।

১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন ২০১৮ প্রবেশপত্র ডাউনলোড




১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন ২০১৮ এর আবেদন প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে আগেই।জানা গেছে আবেদন করেছেন ১০ লক্ষ প্রার্থী।প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১৯শে এপ্রিল।পরীক্ষার সময়সূচি প্রকাশিত হওয়ার পর আমাদের সমকাল ব্লগেও তা জানিয়ে দেয়া হলো।ntrca থেকে শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার সময়সূচি প্রকাশের পরেই ডাউনলোড করা যায় পরীক্ষার জন্য প্রবেশপত্র।

প্রিলিমিনারি পরীক্ষার মতো ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা ২০১৮ এর লিখিত পরীক্ষার তারিখও ঘোষণা করা হয়েছে।স্কুল ও স্কুল ২ এর লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ২৬শে জুলাই ২০১৯ শুক্রবার সকাল ৯ টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত।কলেজ পর্যায়ের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ২৭শে জুলাই শনিবার সকাল ৯ টা থেকে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত।
১৫তম_শিক্ষক_নিবন্ধন_পরীক্ষা

প্রবেশপত্র ডাউনলোড করুন

4 comments:

  1. ডিপ্লোমা ইন্জিনিয়ারিং এর স্টুডেন্টরা কি আবেদন করতে পারবে ! ? আর যদি আবেদন করা যায় তাহলে কোন কোন বিষয়ের উপরে আবেদন করা যাবে একটু জানাবেন প্লিজ স্যার....!!!!

    ReplyDelete
    Replies
    1. কম্পিউটার সায়েন্স নিয়ে কমপক্ষে চার বছর মেয়াদী সার্টিফিকেট থাকলে কম্পিউটার শিক্ষক পদে আবেদন করা যাবে তবে এজন্য গ্র্যাজুয়েট হতে হবে।সার্কুলারে বিস্তারিত পাবেন।কমেন্ট করার জন্য ধন্যবাদ।সমকাল ব্লগের সাথেই থাকুন।

      Delete
  2. আমি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে Human resource management এ BBA and MBA করেছি আমি কি নিবন্ধন করতে পারব?

    ReplyDelete
    Replies
    1. আপনাকে নিবন্ধন পরীক্ষার সার্কুলারটি ভালো করে পড়ে দেখতে হবে।

      Delete