Breaking

Translate

Friday, 19 July 2019

July 19, 2019

ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ সংশোধিত হয়েছে

ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন
ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ প্রকাশিত হয়েছে। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ খুব সহজেই ডাউনলোড করুন আমাদের ওয়েবসাইট থেকে। ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষা শুরু হবে ২রা জুলাই ২০১৯। সুতরাং আপনার ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ দ্রুত ডাউনলোড করুন এবং আপনার পরীক্ষার জন্য ভালভাবে প্রস্তুতি গ্রহণ করুন।আরও পড়ুন ডিগ্রি ১ম বর্ষের পরীক্ষার রুটিন ২০১৯

এছাড়াও ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম পূরন ২০১৯ সংক্রান্ত সকল আপডেট জানতে পারবেন এখানে।

ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ ডাউনলোড




জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় তাদের সকল পরীক্ষার রুটিন নিজেদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে। আমরাও আমাদের ওয়েবসাইটে সকল রুটিন প্রকাশ করে থাকি যাতে আপনারা সহজেই তা ডাউনলোড করে নিতে পারেন। সম্প্রতি প্রকাশিত হয়েছে ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ পরীক্ষার বছর ২০১৮ এবং সেশন ২০১৬-১৭। এখান থেকে রুটিনটি ডাউনলোড করে নিন।
ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯
ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯

ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ পিডিএফ ডাউনলোড





ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ পিডিএফ ডাউনলোড করতে চাইলে এই লিংকে ক্লিক করুন

ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ (সংশোধিত)

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। এতে বলা হয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিতব্য ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষা ২০১৮ এর ১৮/০৭/১৯ এবং ২১/০৭/১৯ তারিখের পরীক্ষা অনিবার্য কারণবশত স্থগিত করা হয়েছে। ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ এর অন্যান্য পরীক্ষার তারিখ অপরিবর্তিত থাকবে। বিজ্ঞপ্তিটি নিচে দেয়া হলো।

ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষার রুটিন ২০১৯

এরপর আরেকটি নোটিশের মাধ্যমে পূর্বের স্থগিত হওয়া পরীক্ষার নতুন তারিখ জানিয়ে দিয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। নিচে সংশোধিত পরীক্ষার তারিখ সংক্রান্ত নোটিশটি দেয়া হলো।
ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষার রুটিন ২০১৯


ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯ নোটিশ




জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯ এর সময় বৃদ্ধি করেছে। ১ম দফার বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী ফরম ফিলাপ এর সময় বৃদ্ধি করা হয়েছিলো ১১/০৬/১৯ তারিখ পর্যন্ত।

এরপর ২য় দফায় আরেকটি নোটিশের মাধ্যমে ২য় বারের মতো ২০১৮ সালের ডিগ্রি পাস ও সার্টিফিকেট কোর্সের ফরম পূরনের সময় বৃদ্ধি করা হলো। এবার ১৮/০৬/১৯ হতে ২২/০৬/১৯ তারিখ পর্যন্ত ফরম পূরনের সময় বৃদ্ধি করা হয়। তবে এই বর্ধিত সময়ে ফরম পূরন করতে হলে বাড়তি ৫০০০ টাকা জরিমানা গুনতে হবে পরীক্ষার্থীদের।

ডিগ্রি ২য় বর্ষ ২য় দফায় ফরম পূরনের সময় বৃদ্ধি

ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯ নোটিশ

ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯ শুরু হয়েছে। ফরম ফিলাপের বিস্তারিত নিয়মকানুন দেখুন নোটিশে। ডিগ্রি ২য় বর্ষের ২০১৬-১৭ সেশনের নিয়মিত পরীক্ষার্থীরা ফরম পূরন করতে পারবেন। ফরম ফিলাপ শুরু হয়েছে ১৫ই এপ্রিল ২০১৯ তারিখ থেকে।
ডিগ্রি ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯

ডিগ্রি ফরম ফিলাপ
ডিগ্রী ২য় বর্ষ ফরম ফিলাপ ২০১৯




Thursday, 18 July 2019

July 18, 2019

এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ এবং এইচএসসি রেজাল্ট পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯ দেখুন

এইচএসসি রেজাল্ট
এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ প্রকাশিত হবে শীঘ্রই। মার্কশীট সহ সকল শিক্ষা বোর্ডের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ প্রকাশিত হবে একযোগে সারা বাংলাদেশে। নিয়ম অনুযায়ী সকাল দশটায় শিক্ষা মন্ত্রী ডা. দীপু মণি এইচএসসি রেজাল্ট 2019 তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে। এরপর সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এইচ এস সি রেজাল্ট 2019  এর সারসংক্ষেপ আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হবে। মূলত এর পরই পরীক্ষার্থীদের জন্য উন্মুক্ত করা হবে এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯।

ফলাফল প্রকাশিত হওয়ার পর পরীক্ষার্থীরা চাইলে এইচএসসি রেজাল্ট পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯ এর জন্যও আবেদন করতে পারবেন। এইচএসসি ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯ সংক্রান্ত সকল তথ্য পাওয়া যাবে সমকাল ব্লগে।

    এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ সম্পর্কে সাধারণ তথ্য

    উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি পরীক্ষা ২০১৯) ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়েছিল ১লা এপ্রিল সোমবার। আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদ্রাসা ও কারিগরি বোর্ড মিলিয়ে মোট দশটি বোর্ডে এবার মোট পরীক্ষার্থী ছিলো ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৫০৫ জন। এর মধ্যে আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে শুধু এইচএসসি পরীক্ষার্থীই ছিলো ১১ লাখ ৩৮ হাজার ৭৪৭ জন। এতদিন এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ এর জন্য অপেক্ষমান ছিলেন এসকল পরীক্ষার্থী এবং তাদের অভিভাবকগণ। এইচ এস সি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ এবং এইচ এস সি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ সম্পর্কে সর্বশেষ খবর প্রচারিত হয়েছে সমকাল ব্লগে। কাজেই hsc ফলাফল ২০১৯ বা নাম্বার সহ এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ জানতে পড়ুন সমকাল ব্লগ।




    এইচএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ অনুযায়ী লিখিত পরীক্ষা শেষ ১১ মে। অতঃপর ১২ থেকে ২১ মের মধ্যে ব্যবহারিক পরীক্ষাও শেষ। প্রশ্ন ছিলো এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ কবে দিবে।এইচ এস সি পরীক্ষার ফলাফল 2019 ইতোমধ্যেই প্রকাশ করা হয়েছে। ২০১৯ সালের এইচএসসি পরীক্ষার পাশের হার ছিলো ৭৩.৯৩ শতাংশ। এইচ এস সি রেজাল্ট 2019 এর পাশাপাশি এসএসসি রেজাল্ট ২০১৯ এবং এসএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০২০ সম্পর্কেও বিস্তারিত জানা যাবে সমকাল ব্লগে।

    এইচ এস সি পরীক্ষা ২০১৯ এ প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে গৃহীত ব্যাবস্থা

    শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও শিক্ষা বোর্ডগুলো প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধসহ পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ নিয়েছে।যেমনঃ

    • পরীক্ষা শুরু হওয়ার ৩০ মিনিট আগে কেন্দ্রে পরীক্ষার্থীদের আসন গ্রহণ করতে হবে।
    • কোনো পরীক্ষার্থীর কেন্দ্রে আসতে দেরি হলে তার নাম, রোল নম্বর ও দেরি হওয়ার কারণ উল্লেখ করে প্রতিদিন সংশ্লিষ্ট বোর্ডকে জানাবেন কেন্দ্র সচিব।
    • পরীক্ষা কেন্দ্রে দায়িত্ব পালনকারী ব্যক্তিদের মধ্যে শুধু কেন্দ্র সচিব সাধারণ মানের একটি ফোন ব্যবহার করতে পারবেন।
    • অন্য কেউ মোবাইল ফোন বা অননুমোদিত ইলেকট্রনিকস যন্ত্র ব্যবহার করতে পারবেন না।
    • পরীক্ষার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ছাড়া অন্যরা কেন্দ্রের ২০০ গজের মধ্যে প্রবেশ করতে পারবেন না।
    • পরীক্ষা শুরুর মাত্র ২৫ মিনিট আগে কোন সেট প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা হবে,তা নির্ধারণ করে জানানো হবে।
    • ১ এপ্রিল থেকে ৬ মে পর্যন্ত দেশের সব ধরনের কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে।

    এছাড়াও সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে প্রশ্নপত্র ফাঁস সংক্রান্ত গুজব বা এ কাজে তৎপর চক্রগুলোর কার্যক্রমের বিষয়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও সরকারের সংশ্লিষ্ট বিভাগগুলো নজরদারি জোরদার করেছে বলে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে।

    এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ কবে দিবে




    সাধারণত পরীক্ষা শেষ হওয়ার দুই মাস বা ৬০ দিন পর প্রকাশিত হয় এইচএসসি ফলাফল।কাজেই বলা যায় জুলাই মাসেই প্রকাশিত হবে hsc ফলাফল ২০১৯। তবে সুনির্দিষ্ট তারিখ ঘোষণা হওয়ার পরেই তা জানিয়ে দেয়া হলো আমাদের পাঠকদের।

    আন্তঃ শিক্ষা বোর্ড জাতীয় সাব কমিটির পক্ষ থেকে ২৩ জুন জানানো হয়েছিলো তারা ২০,২১ ও ২২শে জুলাইয়ের যেকোনো দিন এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ প্রকাশের জন্য প্রস্তাব সম্বলিত চিঠি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে পাঠিয়েছেন। এখন শিক্ষা মন্ত্রণালয় যে তারিখ নির্ধারণ করবে সেদিনই প্রকাশ করা হবে এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ । নিয়ম অনুযায়ী প্রস্তাবিত এই তিন দিনের মধ্যে যেদিন প্রধানমন্ত্রী সময় দিতে পারবেন সেদিনই প্রকাশ করা হবে এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯। তবে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে নিশ্চিত করা হয়েছে ১৭ ই জুলাই প্রকাশ করা হবে এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯।
    এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ কবে দিবে


    এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ দেখুন এসএমএস এ

    অন্যান্য পাবলিক পরীক্ষার ফলাফলের মতোই এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ দেখা যাবে মোবাইল ফোনে এসএমএসের মাধ্যমে।

    ২০১৯ সালের এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল আপনার মোবাইলে পেতে মোবাইল এর মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করুনঃ

    HSC স্পেস বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর স্পেস রোল নম্বর স্পেস 2019

    এরপর পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

    উদাহরণঃ HSC DHA 012345 2019  SEND TO 16222 (যে কোন অপারেটর থেকে)

    বাংলাদেশের সকল শিক্ষা বোর্ডের কোড নেম নিচে দেয়া হলো
    No Board Name Short Code
    1 Barisal BAR
    2 Chittagong CHI
    3 Comilla COM
    4 Dhaka DHA
    5 Dinajpur DIN
    6 Jessore JES
    7 Rajshahi RAJ
    8 Sylhet SYL
    9 Madrasah MAD
    10 Technical TEC

    এইচ এস সি রেজাল্ট 2019 দেখুন অনলাইনে




    নাম্বার সহ এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ দেখার সবচেয়ে জনপ্রিয় ওয়েবসাইট হলো http://www.educationboardresults.gov.bd মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনস্থ সকল পাবলিক পরীক্ষার ফলাফল দেখা যায় এই ওয়েবসাইটে।যেমনঃ জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯

    hsc রেজাল্ট 2019 দেখার জন্য

    1. প্রথমে http://www.educationboardresults.gov.bd ওয়েবসাইট ওপেন করতে হবে। Examination এর ঘরে HSC/Alim সিলেক্ট করতে হবে।
    2. Year এর ঘরে 2019 সিলেক্ট করতে হবে।
    3. Board এর ঘরে নিজ শিক্ষা বোর্ড সিলেক্ট করতে হবে।
    4. Roll এর ঘরে রোল নম্বর দিতে হবে।
    5. Reg এর ঘরে রেজিস্ট্রেশন নম্বর দিতে হবে।
    6. সংখ্যার ক্যাপচা বসাতে হবে।অর্থাৎ দুটি সংখ্যা দেয়া থাকবে এর যোগফল বসাতে হবে।
    7. সর্বশেষ Submit বাটনে ক্লিক করলেই চলে আসবে রেজাল্ট!
    8. পুনরায় অন্য কারো রেজাল্ট দেখতে চাইলে Reset বাটনে ক্লিক করে আগের মতোই সকল তথ্য দিয়ে সাবমিট করতে হবে।
    এইচ এস সি রেজাল্ট

    অনলাইনে এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ দেখার ২য় পদ্ধতি





    এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ অনলাইনে দেখার জন্য আরেকটি সরকারি অফিসিয়াল ওয়েবসাইট রয়েছে।এখানেও সকল মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষার ফলাফল দেখা যায়।পদ্ধতি প্রায় একইরকম তবে সামান্য কিছু পার্থক্য রয়েছে।যেমনঃ
    1. প্রথমে https://eboardresults.com/app/stud/ এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে।
    2. এরপর আগের মতোই Examination,Year,Board এর ঘরগুলো সঠিকভাবে পুরন করতে হবে।
    3. অতঃপর Result type এ এসে নিজের এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল দেখতে Individual result সিলেক্ট করতে হবে।
    4. এরপর আগের মতোই Roll,Registration নম্বর দিয়ে সঠিক ক্যাপচা কোডটি বসাতে হবে।
    5. সর্বশেষ Get Result এ ক্লিক করলেই চলে আসবে কাঙ্ক্ষিত ফলাফল।
    এইচ এস সি ফলাফল

    এইচএসসি রেজাল্ট 2019 দেখার অফিসিয়াল ওয়েবসাইট কোনটি?

    প্রত্যেক পরীক্ষার্থীর পরীক্ষার ফলাফল দেখার অফিসিয়াল ওয়েবসাইটি জানা দরকার।কারণ অফিসিয়াল ওয়েবসাইট হলো যে কোনো তথ্য জানার সবচেয়ে বিশ্বস্ত মাধ্যম।

    মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে যতো পাবলিক পরীক্ষা হয় তার ফলাফল দেখার জন্য একটি অফিশিয়াল ওয়েবসাইট রয়েছে।

    অফিশিয়াল ওয়েবসাইটটি হলো http://www.educationboardresults.gov.bd/ এইচএসসি পরীক্ষা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনেই অনুষ্ঠিত হয়।কাজেই এইচ এস সি রেজাল্ট 2019 দেখার জন্য অফিশিয়াল ওয়েবসাইট এটিই।

    অনলাইনে এইচ এস সি রেজাল্ট 2019 দেখার সবচেয়ে সেরা ওয়েবসাইট কোনটি? 

    আমরা পূর্বেই বলেছি যে কোনো তথ্য জানার সবচেয়ে সেরা মাধ্যম হলো অফিশিয়াল ওয়েবসাইট।এইচএসসি রেজাল্ট 2019 দেখার অফিশিয়াল ওয়েবসাইটের লিংকও আমরা শেয়ার করেছি।

    এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ অনলাইনে দেখার ইউজার গাইড

    এইচ এস সি পরীক্ষার রেজাল্ট ২০১৯ দেখা একেবারেই সহজ বিষয়।অনলাইনে রেজাল্ট দেখার সকল সহজ পদ্ধতি আমরা দেখিয়েছি।বিশেষ করে https://eboardresults.com/app/ এই ওয়েবসাইট থেকে পরীক্ষার ফলাফল দেখার যে পদ্ধতি আমরা বলেছি এরপরও বুঝতে অসুবিধা হলে এই ওয়েবসাইটের নিজস্ব ইউজার গাইডটি দেখে নিতে পারেন।ফলাফল দেখার জন্য এই ওয়েবসাইটের নিজস্ব ইউজার গাইড রয়েছে যেখানে ছবি সহকারে পরীক্ষার রেজাল্ট দেখার পদ্ধতি দেখানো হয়েছে।

    এইচএসসি রেজাল্ট পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯




    এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ প্রকাশিত হওয়ার পরদিন থেকেই পরীক্ষার্থীরা পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারবেন। ফলাফল প্রকাশের পরে প্রায় সাত দিন পর্যন্ত পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করার সুযোগ দেয়া হয় পরীক্ষার্থীদের। ১৮ই জুলাই থেকে ২৪শে জুলাই পর্যন্ত ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারবেন পরীক্ষার্থীরা। আবেদনের পদ্ধতি এবং এ সংক্রান্ত আরো বিস্তারিত দেখুন নিচের বিজ্ঞপ্তিতে।
    এইচএসসি ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯

    এইচএসসি ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণ ২০১৯ কি?

    এইচ এস সি রেজাল্ট ২০১৯ প্রকাশিত হওয়ার পরে যদি কোনো পরীক্ষার্থী ফলাফল নিয়ে সন্তুষ্ট না হন এবং সন্দেহ করেন যে ফলাফল ভুল এসেছে সেক্ষেত্রে নিঃসন্দেহ হওয়ার জন্য তিনি ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারেন। এতে ফলাফল ভুল এসে থাকলে তা পুনরায় যাচাই করে সঠিক ফলাফল জানিয়ে দেবে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা বোর্ড। এটিই হলো ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণ।

    পরীক্ষার্থীদের জন্য জ্ঞাতব্য হলো এক্ষেত্রে তাদের পরীক্ষার খাতা সম্পূর্ণরূপে পুনরায় দেখা হবেনা। শুধু তাদের প্রাপ্ত নম্বরগুলো পুনরায় যোগ করে দেখা হবে যে কোথাও ভুল হয়েছে কিনা। ভুল হয়ে থাকলে সংশোধন করে দেয়া হবে।

    একজন শিক্ষার্থী একাধিক বিষয়ের ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারবেন। তবে প্রতিটি বিষয়ের জন্য আলাদা করে ১৫০ টাকা পরিশোধ করতে হবে।




    Friday, 12 July 2019

    July 12, 2019

    জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ ও জেডিসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ ডাউনলোড করুন

    জেএসসি পরীক্ষার রুটিন
    জেএসসি রুটিন ২০১৯ বা জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ প্রকাশিত হয়েছে। গত ৩রা জুলাই প্রকাশিত হয়েছে jsc পরীক্ষার রুটিন ২০১৯। এবছর বেশ আগেভাগেই প্রকাশিত হলো jsc পরীক্ষার রুটিন 2019। কাজেই এবছর আগে থেকেই পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিতে পারবে জেএসসি পরীক্ষার্থীরা।

    এবছর জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট বা জেএসসি পরীক্ষা শুরু হবে ২রা নভেম্বর ২০১৯ তারিখে এবং পরীক্ষা শেষ হবে ১১ই নভেম্বর ২০১৯ তারিখে। মোট সাতটি বিষয়ে অনুষ্ঠিত হবে জেএসসি পরীক্ষা ২০১৯। তবে কতৃপক্ষ যে কোনো কারণবশত যে কোনো সময় এ রুটিনের আংশিক বা সম্পূর্ণ পরিবর্তন করতে পারেন। এজন্য জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ও জেডিসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ সম্পর্কে সর্বশেষ খবর জানতে নিয়মিত চোখ রাখুন সমকাল ব্লগে। আরো পড়ুন জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯

      জেএসসি রুটিন ২০১৯ এক নজরে




      সকল সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে জেএসসি পরীক্ষা ২০১৯ শুরু হবে একযোগে একই সময়ে। এবং সকল সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের জন্য jsc রুটিন 2019 একই। নিচে যেসকল শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষার্থীদের জন্য এ রুটিন প্রযোজ্য তার তালিকা দেয়া হলো।

      • ঢাকা বোর্ড
      • রাজশাহী বোর্ড
      • কুমিল্লা বোর্ড
      • চট্রগ্রাম বোর্ড
      • যশোর বোর্ড
      • দিনাজপুর বোর্ড
      • সিলেট বোর্ড
      • বরিশাল বোর্ড

      পরীক্ষার নাম জেএসসি (জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট)
      পরীক্ষা শুরু ২রা নভেম্বর
      পরীক্ষা শেষ ১১ই নভেম্বর
      পরীক্ষা শুরুর সময় সকাল ১০ টা
      মোট পরীক্ষা ৭ টি

      জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ ডাউনলোড




      যারা জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ ডাউনলোড করতে চান তারা খুব সহজেই এখান থেকে তা ডাউনলোড করে নিতে পারেন। ছবি আকারে জেএসসি রুটিন ২০১৯ নিচে দেয়া হয়েছে। তবে PDF আকারে jsc রুটিন ২০১৯ ডাউনলোড করতে চাইলে লিংকে ক্লিক করে সরাসরি শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট থেকে তা ডাউনলোড করে নিতে পারেন নির্বিঘ্নে।
      জেএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯

      জেডিসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯




      জেডিসি পরীক্ষার রুটিন ২০১৯ প্রকাশ হওয়া মাত্রই তা আমাদের পাঠকদের জন্য এখানে প্রকাশিত হবে। এজন্য মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনস্ত জেডিসি পরীক্ষার্থীদের ধৈর্য্যসহকারে অপেক্ষা করার জন্য অনুরোধ করা হলো। জেডিসি পরীক্ষার রুটিন 2019 সর্বপ্রথম প্রকাশিত হয় মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে।

      জেডিসি রেজিস্ট্রেশন ২০১৯

      জেডিসি পরীক্ষার রেজিস্ট্রেশন কার্ড বিতরণ সংক্রান্ত একটি অফিস আদেশ প্রকাশিত হয়েছে। এতে ০৭/০৭/১৯ থেকে ২৯/০৮/১৯ তারিখের মধ্যে জেডিসি পরীক্ষা ২০১৯ এর রেজিস্ট্রেশন কার্ড মাদ্রাসা বোর্ড এবং এর আঞ্চলিক অফিসসমূহ থেকে বিতরণ করা হবে বলে জানানো হয়েছে। সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কতৃপক্ষকে উক্ত সময়ের মধ্যেই স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানের জেডিসি পরীক্ষা ২০১৯ এর রেজিস্ট্রেশন কার্ড সংগ্রহ করার জন্য বলা হয়েছে।
      জেডিসি রেজিস্ট্রেশন ২০১৯




      Thursday, 11 July 2019

      July 11, 2019

      পুলিশ নিয়োগ ২০১৯ শুরু হয়েছে | পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ দেখুন

      পুলিশের চাকরির খবর

      পুলিশ নিয়োগ ২০১৯ শুরু হয়েছে। বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে চাকুরি করতে চান? পুলিশ নিয়োগ সার্কুলার ২০১৯ খুঁজছেন? সেনাবাহিনী নিয়োগ ২০১৯, বিমান বাহিনী নিয়োগ ২০১৯বাংলাদেশ রেলওয়ে নিয়োগ ২০১৯, চাকরির খবর পুলিশ,নতুন পুলিশ নিয়োগ ২০১৯ সহ সকল গুরুত্বপূর্ণ সরকারি, বেসরকারি চাকরির নিয়োগ সম্পর্কে সর্বশেষ খবর জানতে নিয়মিত পড়ুন সমকাল ব্লগ।




      স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পুলিশ। পুলিশে চাকরি অনেক চাকরি প্রার্থীর কাছেই ফেভারিট।যারা পুলিশের বিভিন্ন পদে চাকরি করতে আগ্রহী তাঁরা বাংলাদেশ পুলিশ নিয়োগ এর জন্য অপেক্ষায় আছেন। তারা জানতে চান পুলিশ নিয়োগ কবে, পুলিশ নিয়োগ কবে 2019। এখানে আপনি পাবেন পুলিশ নিয়োগ 2019 এর সকল খবর।

      পুলিশ নিয়োগ ২০১৯ শুরু হয়েছে। বিস্তারিত বর্ণনা করা হয়েছে সমকাল ব্লগে। ডাউনলোড করুন পুলিশ সার্কুলার, পুলিশের নতুন নিয়োগের খবর পড়ুন। পুলিশের চাকরির খবর জানতে সমকাল ব্লগের সাথেই থাকুন।

        পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯




        বিজ্ঞপ্তিটির PDF ডাউনলোড করুন
        ২০১৯ সালের পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। বাংলাদেশ পুলিশে ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল বা টিআরসি পদে নিয়োগের লক্ষে ৬৮০০ জন পুরুষ এবং ২৮৮০ জন নারী সর্বমোট ৯৬৮০ জন প্রার্থীকে বাছাই করা হবে।আগ্রহী প্রার্থীদের শারিরীক মাপ ও শারীরিক পরীক্ষা সহ লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য বিজ্ঞপ্তিতে বর্ণিত তারিখ ও সময়ে তাদের নিজ জেলাস্থ পুলিশ লাইন্সে (যে জেলায় স্থায়ী বাসিন্দা) প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সহ উপস্থিত থাকার জন্য আহ্বান জানানো হয়েছে। বিজ্ঞপ্তির ডাউনলোড লিংক

        প্রত্যেক জেলার পুলিশ লাইন্স ময়দানে আগ্রহী প্রার্থীদের শারীরিক মাপ ও পরীক্ষা,লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষার মাধ্যমে বাছাই করা হবে।নিজ নিজ জেলার পরীক্ষার সময়সূচি দেখুন বিজ্ঞপ্তিতে।

        পুলিশ নিয়োগ ২০১৯ পরীক্ষা পদ্ধতি


        শারীরিক মাপ ও শারীরিক পরীক্ষা : প্রার্থীকে প্রথমে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত স্থান ও সময়ে শারীরিক মাপ ও শারীরিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।উত্তীর্ণ প্রার্থীদের প্রবেশপত্র প্রদান এবং লিখিত পরীক্ষার স্থান ও সময় জানিয়ে দেয়া হবে।

        লিখিত পরীক্ষা : শারীরিক মাপ ও শারীরিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের ১ ঘন্টা ৩০ মিনিটের ৪০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।কমপক্ষে ৪৫% নম্বর প্রাপ্ত প্রার্থীগণ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ বলে বিবেচিত হবেন।

        মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা : লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের নির্দিষ্ট তারিখে ২০ নম্বরের মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।আলাদাভাবে কমপক্ষে ৪৫% নম্বর প্রাপ্ত প্রার্থীরা উত্তীর্ণ বলে গণ্য হবেন।
        পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯


        স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছিলেন ২০১৯ সালের মধ্যে পঞ্চাশ হাজার পুলিশ নিয়োগ করা হবে।কাজেই পুলিশ নিয়োগ সার্কুলার ২০১৯ এর সর্বশেষ খবর সাথে সাথেই জানতে নিয়মিত পড়ুন সমকাল ব্লগ।

        এদিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মন্তব্য করেছেন আগামী ৫ বছরে আরো ৫০ হাজার পুলিশ নিয়োগ দেয়া হবে।বর্তমানে বাংলাদেশে পুলিশ রয়েছে ২ লাখ ১২ হাজার।

        আরও জানা গেছে পুলিশ বাহিনী চায় আগামী ৫ বছরে আরো ১ লক্ষ জনবল নিয়োগ দিতে।শীঘ্রই তারা সরকারের কাছে এ সংক্রান্ত দাবি উপস্থাপন করতে যাচ্ছে।

        এসআই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯





        ২০১৯ সালের এসআই নিয়োগ শুরু হয়েছে।সম্প্রতি বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে ২০১৯ সালের বহিরাগত ক্যাডেট ‘সাব-ইন্সপেক্টর (নিরস্ত্র)’ পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।বাংলাদেশের যে কোনো অনুমোদিত বিশ্ববিদ্যালয় হতে ন্যুনতম স্নাতক পাশ ও কম্পিউটারে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন প্রার্থীগণ পুলিশের বহিরাগত ক্যাডেট ‘সাব-ইন্সপেক্টর (এসআই) পদে নিয়োগের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

        প্রাথমিকভাবে শারীরিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর প্রার্থীদেরকে আবেদন ফরম পূরণ করে ৭ মের মধ্যে নিজ নিজ রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয়ে তা পৌঁছাতে হবে।আগামী ২৮, ২৯ ও ৩০ এপ্রিল সকাল ৯টায় পুলিশের আটটি বিভাগীয় রেঞ্জে শারীরিক মাপ ও পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

        শারীরিক পরীক্ষার সময় প্রার্থীদের যা যা সাথে আনতে হবে

        • শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদের মূল কপি
        • সর্বশেষ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধান কর্তৃক প্রদত্ত চারিত্রিক সনদের মূল কপি
        • জাতীয় পরিচয়পত্রের মূল কপি
        • নাগরিকত্ব সনদের মূল কপি
        • সত্যায়িত ৩ কপি সদ্য তোলা পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবি এবং
        • বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত প্রয়োজনীয় অন্যান্য কাগজপত্র।

        আবেদনের যোগ্যতা:

        সাব-ইন্সপেক্টর (এস আই) পদে আবেদন করার জন্য আবেদনকারীকে ন্যূনতম স্নাতক পাস হতে হবে।পাশাপাশি কম্পিউটারে অভিজ্ঞ হতে হবে।প্রার্থীদের অবশ্যই বাংলাদেশের নাগরিক এবং অবিবাহিত হতে হবে।
        আবেদনের বয়স:
        সাধারণ প্রার্থীদের বয়স ১ এপ্রিল ২০১৯ তারিখে ১৯ থেকে ২৭ বছরের মধ্যে এবং মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের ক্ষেত্রে একই তারিখে বয়স ১৯ থেকে ৩২ বছরের মধ্যে হতে হবে।

        শারীরিক যোগ্যতা:

        এস আই পদে আবেদনের জন্য পুরুষ প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উচ্চতা ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি, বুকের মাপ স্বাভাবিক অবস্থায় ৩০ ইঞ্চি ও সম্প্রসারিত অবস্থায় ৩২ ইঞ্চি হতে হবে।আর নারী প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উচ্চতা কমপক্ষে ৫ ফুট ২ ইঞ্চি হতে হবে।

        পরীক্ষার সময়:

        উল্লেখিত তারিখে অনুষ্ঠিত শারীরিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদেরকে লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে। ১৬ জুন ২০১৯ তারিখ সকাল ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত ইংরেজি, বাংলা রচনা ও কম্পোজিশন বিষয়ে ১০০ নম্বরের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।১৭ জুন ২০১৯ তারিখ সকাল ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত সাধারণ জ্ঞান ও পাটিগণিত বিষয়ে ১০০ নম্বরের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।এরপর ১৮ জুন ২০১৯ তারিখ সকাল ১০টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ২৫ নম্বরের মনস্তত্ত্ব পরীক্ষা নেয়া হবে।পরীক্ষার স্থান প্রার্থীদের পরবর্তী সময়ে জানিয়ে দেবে কতৃপক্ষ।

        আবেদনপত্র প্রেরণ:

        শারীরিক যোগ্যতার পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদেরকে সংশ্লিষ্ট রেঞ্জের ডিআইজির কাছ থেকে ওই দিনই তিনশত টাকা নগদ মূল্যে আবেদনপত্র ক্রয় করতে হবে।এরপর প্রার্থীদেরকে বাংলাদেশ পুলিশের অনুকূলে যেকোনো রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকে পরীক্ষার ফি বাবদ ৩০০ টাকা ১-২২১১-০০০০-২০৩১ অথবা ১২২০২০১১৩৫৯৫৪১৪২২৩২৬ নম্বর কোডে ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে জমা দিয়ে চালানের মূল কপিসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র আবেদন পত্রের সাথে সংযুক্ত করে দিতে হবে।আবেদন ফরম সঠিকভাবে পূরণ করে ৭ মে ২০১৯ তারিখের মধ্যে নিজ নিজ রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয়ে জমা দিতে হবে।

        আরো বিস্তারিত জানার জন্য বিজ্ঞপ্তিটি পড়ুন।
        এসআই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯

        বিজ্ঞপ্তিটি সরাসরি ডাউনলোড করতে পারেন বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীর ওয়েবসাইট থেকে।

        হাইওয়ে পুলিশ নিয়োগ ২০১৯

        ৬টি পদে ১৬ জনের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছিল উত্তরা হাইওয়ে পুলিশ।আগ্রহী প্রার্থীদের ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত আবেদন করার সুযোগ ছিলো।




        পদের নাম: সাঁট মুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর
        পদসংখ্যা: ০১ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: এইচএসসি/সমমান
        দক্ষতা: কম্পিউটার টাইপিংয়ে সর্বনিম্ন গতি বাংলায় প্রতি মিনিটে ২৫ অক্ষর,ইংরেজিতে ৩০।
        বেতন গ্রেড ১৩ : ১১,০০০-২৬,৫৯০ টাকা

        পদের নাম: হিসাবরক্ষক
        পদসংখ্যা: ০১ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: এইচএসসি/সমমান
        বেতন গ্রেড ১৪ : ১০,২০০-২৪,৬৮০ টাকা

        পদের নাম: ক্যাশিয়ার
        পদসংখ্যা: ০২ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: এইচএসসি/সমমান
        বেতন গ্রেড ১৬ : ৯,৩০০-২২,৪৯০ টাকা

        পদের নাম: অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক
        পদসংখ্যা: ০৬ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: এইচএসসি/সমমান
        দক্ষতা: কম্পিউটার টাইপিংয়ে সর্বনিম্ন গতি বাংলায় প্রতি মিনিটে ২০ অক্ষর,ইংরেজিতে ২০।
        বেতন গ্রেড ১৬ : ৯,৩০০-২২,৪৯০ টাকা

        পদের নাম: অফিস সহায়ক
        পদসংখ্যা: ০১ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: ৮ম শ্রেণি
        বেতন গ্রেড ২০ : ৮,২৫০-২০,০১০ টাকা

        পদের নাম: পরিচ্ছন্নতাকর্মী
        পদসংখ্যা: ০৫ জন
        শিক্ষাগত যোগ্যতা: ৮ম শ্রেণি
        বেতন গ্রেড ২০ : ৮,২৫০-২০,০১০ টাক

        নারী-পুরুষ উভয়ই আবেদন করতে পারবেন।

        বয়স: ০১ মার্চ ২০১৯ তারিখে ১৮-৩০ বছর।বিশেষ ক্ষেত্রে ৩২ বছর

        আবেদনপত্র সংগ্রহ: আগ্রহী প্রার্থীরা www.police.gov.bd অথবা
        www.highwaypolice.gov.bd থেকে আবেদন পত্র সংগ্রহ করতে পারবেন।আবেদন পত্র অবশ্যই নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ডাকযোগে পৌঁছাতে হবে।

        আবেদনের ঠিকানা: পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও প্ল্যানিং), বাংলাদেশ পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ হেডকোয়ার্টার্স, উত্তরা, ঢাকা।

        আবেদনের শেষ সময়: ৩০ এপ্রিল ২০১৯

        পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি





        বর্তমানে যেসকল জেলার পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে এখানে সে সম্পর্কে তথ্যগুলো জানিয়ে দেয়া হবে।আগ্রহীরা আবেদন করতে পারবেন।

        পঞ্চগড় পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিয়োগ
        পঞ্চগড় পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিচের তিনটি অস্থায়ী পদে চারজনকে নিয়োগ দেয়া হবে। এজন্য আগ্রহী বাংলাদেশী নাগরিক এবং পঞ্চগড় জেলার স্থায়ী বাসিন্দাদের নিকট থেকে দরখাস্ত আহ্বান করা হয়েছে।

        পদের নাম: সাঁটলিপিকার কাম-কম্পিউটার অপারেটর
        পদ সংখ্যা: ১টি
        বেতন স্কেল: ১১,০০০/-২৬,৫৯০/ টাকা।
        যােগ্যতা: উচ্চ মাধ্যমিক/ সমমান পাস।
        বিশেষ দক্ষতা: শর্টহ্যান্ডে প্রতি মিনিটে ইংরেজিতে ৮০ এবং বাংলায় ৫০ শব্দের গতি এবং কম্পিউটার কম্পােজে প্রতি মিনিটে ইংরেজি ৩০ এবং বাংলায় ২৫ শব্দের গতি থাকতে হবে।

        পদের নাম: সাঁটমুদ্রাক্ষরিক-কাম-কম্পিউটার অপারেটর
        পদ সংখ্যা: ১টি
        বেতন স্কেল: ১০,২০০/-২৪,৬৮০/ টাকা।
        যােগ্যতা: উচ্চ মাধ্যমিক/ সমমান পাস।
        বিশেষ দক্ষতা: শর্টহ্যান্ডে প্রতি মিনিটে ইংরেজিতে ৭০ এবং বাংলায় ৪৫ শব্দের গতি এবং কম্পিউটার কম্পােজে প্রতি মিনিটে ইংরেজি ৩০ এবং বাংলায় ২৫ শব্দের গতি থাকতে হবে।

        পদের নাম: অফিস সহকারী-কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক
        পদ সংখ্যা: ২টি
        বেতনস্কেল: ৯,৩০০/-২২,৪৯০/ টাকা
        যােগ্যতা: উচ্চ মাধ্যমিক/ সমমান পাস।
        বিশেষ দক্ষতা: কম্পিউটার কম্পােজে প্রতি মিনিটে ইংরেজি ৩০এবং বাংলায় ২৫ শব্দের গতি থাকতে হবে।

        আবেদনের শেষ তারিখ ২৮ শে জুলাই ২০১৯। প্রার্থীকে অবশ্যই নির্দিষ্ট আবেদন ফরমে আবেদন করতে হবে। আরো বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞপ্তিতে।
        পঞ্চগড় পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে নিয়োগ

        পুলিশ প্রধানের নাম

        পুলিশে চাকরি করতে ইচ্ছুক অথচ বর্তমান পুলিশ প্রধানের নাম জানবেন না তাও কি হয়?বাংলাদেশের বর্তমান পুলিশ প্রধান বা পুলিশের আইজির নাম ড. জাবেদ পাটোয়ারী।





        Saturday, 6 July 2019

        July 06, 2019

        ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ, এসএসসি রুটিন ২০২০ ডাউনলোড করুন

        এসএসসি রুটিন

        ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার রুটিন, দাখিল রুটিন ২০২০ প্রকাশিত হয়েছে। সকল বোর্ডের এসএসসি রুটিন ২০২০ ডাউনলোড করুন। প্রিয় এসএসসি পরীক্ষার্থী বন্ধুরা আশা করি সবাই ভালো আছো। তোমরা নিশ্চয়ই ইতোমধ্যে জেনে গেছো প্রকাশ হয়েছে ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার রুটিন। পরীক্ষা শুরু ১লা ফেব্রুয়ারি ২০২০ থেকে এবং শেষ হবে ২২শে ফেব্রুয়ারি ২০২০! আরো পড়ুন এইচএসসি রেজাল্ট ২০১৯ 

        সবাই নিশ্চয়ই এসএসসি ২০২০ পরীক্ষার জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুত। চূড়ান্ত প্রস্তুতির জন্য সবাই পড়াশোনায় ব্যাস্ত সময় পার করছো। এবার বেশ আগেভাগেই প্রকাশিত হয়েছে এসএসসি রুটিন ২০২০। সবাই এস এস সি রুটিন ২০২০ হাতে পাওয়ার জন্য অপেক্ষা করছো।সকল বোর্ডের ssc পরীক্ষার রুটিন 2020 একই। ২০১৭ সাল  পর্যন্ত ভিন্ন ভিন্ন বোর্ডের এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্ন ভিন্ন ভিন্ন হতো। ২০১৮ সাল থেকে সকল বোর্ডের এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্ন অভিন্ন হচ্ছে। ফলে সকল বোর্ডের জন্য একটিই রুটিন। ssc রুটিন ২০২০ প্রকাশিত হওয়ার সাথে সাথেই তা আমাদের সমকাল ব্লগে প্রকাশ করা হলো।

          ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার রুটিন

          যারা অনলাইনে এসএসসি পরীক্ষা ২০২০ রুটিন ডাউনলোড করতে চাও তারা আমাদের ব্লগ থেকেই তা করতে পারো। এখানে একইসাথে দাখিল পরীক্ষার রুটিন ২০২০ ও প্রকাশ করা হলো।
          


          তোমরা জেনে আরো খুশি হবে যে আমরা সমকাল ব্লগে তোমাদের সুবিধার জন্য অভিজ্ঞ শিক্ষক দ্বারা প্রণীত এসএসসি সাজেশন ২০২০ প্রকাশ করতে যাচ্ছি। এছাড়াও তোমরা সবাই জানো রুটিন প্রকাশ হওয়ার পরও পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে বিভিন্ন কারণে পরীক্ষার পূর্ব নির্ধারিত সময়সূচি অনেকসময় পরিবর্তন হয়ে যায়! সে ধরণের কিছু ঘটলেও আমরা তা যথাসময়ে জানিয়ে দেবো। কাজেই  2020 সালের ssc পরীক্ষার রুটিন এবং সাজেশন পেতে হলে নিয়মিত পড়তে হবে আমাদের সমকাল ব্লগ। আরো পড়ুন এসএসসি রেজাল্ট ২০১৯

          এস এস সি রুটিন ২০২০ ডাউনলোড pdf

          যারা এসএসসি পরীক্ষার রুটিন পিডিএফ আকারে ডাউনলোড করতে চাও তারা এখান থেকে ডাউনলোড করে নিতে পারো। সরাসরি শিক্ষা বোর্ডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে ডাউনলোড লিংক দেয়া হলো ।

          এসএসসি রুটিন 2020 এতো আগে প্রকাশিত হলো কিভাবে?

          গত ১৯শে জুন আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সাব কমিটি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছে এস এস সি পরীক্ষার রুটিন 2020 এর অনুমোদনের জন্য প্রস্তাব পেশ করে। মন্ত্রণালয় প্রস্তাব অনুমোদন করার পর ৩রা জুলাই বুধবার মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ এ সংক্রান্ত আদেশ জারি করে এবং শিক্ষা বোর্ড থেকে এসএসসি পরীক্ষার রুটিন ২০২০ প্রকাশ করা হয়।



          এস এস সি রুটিন ২০২০ ছবি আকারে

          তত্ত্বীয় পরীক্ষার রুটিন
          ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার রুটিন

          ব্যবহারিক পরীক্ষার রুটিন
          এসএসসি রুটিন ২০২০

          দাখিল রুটিন ২০২০ এবং ভোকেশনাল রুটিন ২০২০

          



          আমরা জানি এসএসসি পরীক্ষা দেশের মোট আটটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত হয়। বোর্ডগুলো হলো : ঢাকা , রাজশাহী, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ, খুলনা, বরিশাল, দিনাজপুর এবং সিলেট।

          এসএসসি পরীক্ষার মতো মাদ্রাসার দাখিল এবং কারিগরির ভোকেশনালও সমমানের পরীক্ষা। দাখিল পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয় মাদ্রাসা বোর্ডের অধীনে এবং ভোকেশনাল পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয় কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে।

          ২০২০ সালের দাখিল পরীক্ষার রুটিন

          ২০২০ সালের ভোকেশনাল পরীক্ষার রুটিন

          এসএসসি পরীক্ষার প্রবেশপত্র

          এসএসসি পরীক্ষার প্রবেশপত্র পরীক্ষার্থীদের নিজ নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে সংগ্রহ করতে হবে। ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার প্রবেশপত্র বিতরণ শুরু হবে ফরম ফিলাপ শেষে।পরীক্ষার্থীদের যত দ্রুত সম্ভব পরীক্ষার প্রবেশপত্র সংগ্রহ করা উচিৎ। প্রবেশপত্রে কোনো ভুল ত্রুটি থাকলে তা সংশোধনের জন্য অল্প কয়েকদিন সময় দেয়া হয়। তবে ভুলত্রুটি থাকলেও এতে শিক্ষার্থীদের ঘাবড়ানোর প্রয়োজন নেই কারণ ভুল ত্রুটির জন্য সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানকেই দায়ী করা হবে এবং ভুল ত্রুটি থাকলে তা সংশোধনের আবেদন করতে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানকেই নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

          বিশেষ নির্দেশনাবলী

          1. পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট পূর্বে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদেরকে পরীক্ষা কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে।
          2. প্রশ্নপত্রে উল্লেখিত সময় অনুযায়ী পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।
          3. প্রথমে বহুনির্বাচনী ও পরে সৃজনশীল / রচনামূলক (তত্ত্বীয়)  পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এবং উভয় পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না।
          4. পরীক্ষার্থীগণ তাদের প্রবেশপত্র নিজ নিজ প্রতিষ্ঠান প্রধানের নিকট হতে পরীক্ষা আরম্ভের কমপক্ষে তিন দিন পূর্বে সংগ্রহ করবে।
          5. ২০১৬-১৭, ২০১৭-১৮ শিক্ষা বর্ষের পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে শারিরীক শিক্ষা, স্বাস্থ্যবিজ্ঞান ও খেলাধুলা এবং ক্যারিয়ার শিক্ষা বিষয়সমূহ এনসিটিবি এর নির্দেশনা অনুসারে ধারাবাহিক মূল্যায়নের মাধ্যমে প্রাপ্ত নম্বর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রকে সরবরাহ করবে। সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র ব্যাবহারিক পরীক্ষার নম্বরের সাথে ধারাবাহিক মূল্যায়নে প্রাপ্ত নম্বর বোর্ডের ওয়েবসাইটে অনলাইনে প্রেরণ করবে।
          6. পরীক্ষার্থীগণ তাদের নিজ নিজ উত্তরপত্রের OMR ফরমে তার পরীক্ষার রোল নম্বর, রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড ইত্যাদি যথাযথভাবে লিখে বৃত্ত ভরাট করবে। কোনো অবস্থাতেই উত্তরপত্র ভাঁজ করা যাবেনা।
          7. প্রত্যেক পরীক্ষার্থী কেবলমাত্র নিবন্ধনপত্রে বর্ণিত বিষয়/ বিষয়সমূহের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে। কোনো অবস্থাতেই ভিন্ন বিষয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে না।
          8. কোনো পরীক্ষার্থীর পরীক্ষা ( সৃজনশীল / রচনামূলক (তত্ত্বীয়) বহুনির্বাচনী ও ব্যাবহারিক)  নিজ বিদ্যালয় /প্রতিষ্ঠানে অনুষ্ঠিত হবেনা। পরীক্ষার্থী স্থানান্তরের মাধ্যমে আসন বিন্যাস করতে হবে।
          9. পরীক্ষার্থীগণ পরীক্ষায় সাধারণ, সায়েন্টিফিক ক্যালকুলেটর ব্যবহার করতে পারবে। কেন্দ্র সচিব ছাড়া কোনো ব্যাক্তি / পরীক্ষার্থী পরীক্ষা কেন্দ্রে মোবাইল ফোন আনতে এবং ব্যবহার করতে পারবে না।
          10. সৃজনশীল / রচনামূলক ( তত্তীয়) , বহুনির্বাচনী ও ব্যাবহারিক পরীক্ষায় পরীক্ষার্থীর উপস্থিতির জন্য একই উপস্থিতি পত্র ব্যবহার করতে হবে।
          11. ব্যাবহারিক পরীক্ষা স্ব স্ব কেন্দ্র /ভেন্যুতে অনু্ষ্ঠীত হবে।
          12. পরীক্ষার ফল প্রকাশের সাত দিনের মধ্যে পুনঃনীরিক্ষার জন্য অনলাইনে এসএমএস এর মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।


          এসএসসি প্রশ্ন ফাঁস

          বাংলাদেশে পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে যথেষ্ট হইচই হয়। এটি বর্তমানে বাংলাদেশে ব্যাপকভাবে আলোচিত একটি সমস্যা। তবে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মণি বলেছেন এর ৮০ ভাগই গুজব। তিনি এসব গুজব থেকে সচেতন থাকার জন্য শিক্ষার্থী,অভিভাবকদের অনুরোধ করেছেন। তবে এসবের মাঝে যে ২০ ভাগ সত্যতা রয়েছে সেটিও রোধ করার জন্য পদক্ষেপ নেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। প্রশ্ন পত্র ফাঁস রোধে ২৭শে জানুয়ারি থেকে ২৭শে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সকল কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছিলো বিগত এসএসসি পরীক্ষার সময়।এছাড়া নির্দেশ রয়েছে কেন্দ্র সচিব ছাড়া পরীক্ষা কেন্দ্রের কেউ মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে পারবেন না।এমনকি কেন্দ্র সচিবের ফোনটিও হতে হবে সাধারণ মানের অর্থাৎ যা দিয়ে শুধু কথা বলা যাবে। প্রশ্ন পত্র পাঠানো হবে এলুমিনিয়াম ফয়েল প্যাকে। পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষার ৩০ মিনিট পূর্বে কেন্দ্রে উপস্থিত হতে হবে।




          Tuesday, 2 July 2019

          July 02, 2019

          বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019 শুরু হয়েছে [অনলাইনে আবেদন করুন]

          বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিয়োগ


            বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019 সার্কুলার

            সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019 সার্কুলার প্রকাশিত হয়েছে। ফলে শুরু হলো বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019। বাংলাদেশ সেনাবাহিনী একটি স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান। অনেক তরুনের স্বপ্ন থাকে সেনাবাহিনীতে চাকরি করার। তাই সেনাবাহিনী নিয়োগ এর জন্য অনেকেই উদগ্রীব থাকেন। তবে সবসময় সেনাবাহিনী নতুন নিয়োগ পাওয়া যায়না।
            সুতরাং সেনাবাহিনীর সার্কুলার ২০১৯ এর জন্য যারা অপেক্ষা করছেন তাদের জন্য এটি সুখবর। আলোচ্য লেখাটিতে আমরা বিশদভাবে জানবো সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019 সম্পর্কে। বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিয়োগ ২০১৯, পুলিশ নিয়োগ ২০১৯, বিমান বাহিনী নিয়োগ ২০১৯, বাংলাদেশ রেলওয়ে নিয়োগ ২০১৯ সম্পর্কে সবসময় সর্বশেষ আপডেট জানতে নিয়মিত পড়ুন সমকাল ব্লগ।

            সৈনিক পদে নিয়োগ ২০১৯




            সৈনিক পদে নিয়োগ ২০১৯ এর জন্য সেনাবাহিনী নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ প্রকাশিত হয়েছে। আগামী ২১শে জুলাই ২০১৯ থেকে ৩১শে ডিসেম্বর ২০১৯ পর্যন্ত নির্ধারিত সেনানিবাসে সৈনিক পদে লোক ভর্তি করা হবে। সৈনিক পদে চাকরি করতে আগ্রহী নারী পুরুষদের আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয় তথ্যাবলী নিচে দেয়া হলো।

            তবে জ্ঞাতব্য বিষয় হলো সৈনিক পদে নিয়োগ 2019 এর জন্য প্রার্থীকে অবশ্যই প্রথমে টেলিটক প্রিপেইড সিম থেকে এসএমএসের মাধ্যমে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।

            সৈনিক পদে রেজিস্ট্রেশন ২০১৯ শুরু হবে ১লা জুন এবং শেষ হবে ৩০শে জুন। সঠিকভাবে এসএমএসের মাধ্যমে রেজিস্ট্রেশন করার পর ফিরতি এসএমএসের মাধ্যমে User ID এবং Password পাওয়া যাবে। উক্ত User ID এবং Password ব্যবহার করে http://sainik.teletalk.com.bd ওয়েবসাইটে Login করে পরীক্ষার প্রবেশপত্র ডাউনলোড করতে হবে।

            পরীক্ষার ৭২ ঘন্টা পূর্বে আবেদনকারীদের এসএমএস করে পরীক্ষার তারিখ এবং সময় জানিয়ে দেয়া হবে। এছাড়া প্রার্থী নিজেও টেলিটক মোবাইল থেকে ৬৫৯৬ নম্বরে এসএমএস করে পরীক্ষার তারিখ এবং সময় জেনে নিতে পারবেন।এসএমএস পাঠানোর নিয়ম দেখুন বিজ্ঞপ্তিতে।

            পাঁচটি ক্যাটাগরিতে সৈনিক পদে নিয়োগ দেয়া হবে।টেলিটক প্রিপেইড সিম থেকে দুটি এসএমএস পাঠিয়ে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।পাঁচটি ক্যাটাগরির জন্য প্রথম এসএমএসটি ভিন্ন ভিন্ন হবে। নিচে প্রতিটি ক্যাটাগরির জন্য ভিন্ন ভিন্ন এসএমএস পদ্ধতি দেয়া হলো।

            প্রথম এসএমএস পদ্ধতি



            সাধারণ প্রার্থীদের (জিডি) জন্য এসএমএস পদ্ধতি

            SAINIK<Space>1st three letters of SSC board<Space>Roll<Space>Passing year<Space>District code

            উদাহরন : SAINIK DHA 012345 2015 34

            বিএনসিসি BNCC প্রার্থীদের জন্য এসএমএস পদ্ধতি

            SAINIK<Space>1st three letters of SSC board<Space>Roll<Space>Passing year<Space>District code<Space>BNCC

            উদাহরন : SAINIK DHA 012345 2016 34 BNCC

            টিটিটিআই TTTI প্রার্থীদের জন্য এসএমএস পদ্ধতি

            SAINIK<Space>1st three letters of SSC board<Space>Roll<Space>Passing year<Space>District code<Space>TTTI

            উদাহরন : SAINIK DHA 012345 2016 34 TTTI

            সেনা সন্তান SS প্রার্থীদের জন্য এসএমএস পদ্ধতি

            SAINIK<Space>1st three letters of SSC board<Space>Roll<Space>Passing year<Space>District code<Space>SS<Space>Exam center code

            উদাহরন : SAINIK DHA 012345 2016 34 SS 111

            টেকনিক্যাল ট্রেডের TT প্রার্থীদের জন্য এসএমএস পদ্ধতি

            SAINIK<Space>1st three letters of SSC board<Space>Roll<Space>Passing year<Space>District code<Space>TT<Exam center code<Space>Trade code

            উদাহরন : SAINIK DHA 012345 2016 34 TT 111 DVR

            উল্লেখ্য District code, Exam center code এবং Trade code বিজ্ঞপ্তিতে দেখুন।এসএমএস পাঠাতে হবে ৬২২২ নম্বরে।

            দ্বিতীয় এসএমএস পদ্ধতি



            প্রথম এসএমএস পাঠানোর পর একটি পিন নম্বর সম্বলিত ফিরতি এসএমএস পাঠানো হবে।পিন নম্বরটি দিয়ে নিম্নলিখিতভাবে দ্বিতীয় এসএমএস পাঠাতে হবে।পরীক্ষার ফী বাবদ ২০০ টাকা কেটে নেয়া হবে।এজন্য ফোনে পর্যাপ্ত ব্যালেন্স থাকতে হবে।

            SAINIK<Space>Yes<Space>PIN Number<Space>Contact Mobile Number and send to 6222

            উদাহরণ : SAINIK YES 012345 01××××××××× send to 6222

            উল্লেখ্য মহিলা প্রার্থীদের ক্ষেত্রে SAINIK এর জায়গায় FSAINIK লিখে প্রথম ও দ্বিতীয় এসএমএস পাঠাতে হবে।

            আবেদনকারী: পুরুষ ও মহিলা প্রার্থীগণ আবেদন করতে পারবেন।

            শিক্ষাগত যোগ্যতা: প্রার্থীদের অবশ্যই এসএসসি পরীক্ষায় নূন্যতম জিপিএ ২.৫০ থাকতে হবে। তবে পিডি এবং পেইন্টার পেশার ক্ষেত্রে অবশ্যই বিজ্ঞান বিভাগ থেকে উত্তীর্ণ হতে হবে।

            বয়স: প্রার্থীদের বয়স ২১ জুলাই ২০১৯ তারিখে ১৭ থেকে ২০ বছরের মধ্যে হতে হবে। এফিডেফিট গ্রহনযোগ্য নয়।

            শারীরিক যোগ্যতা : সৈনিক পদে আবেদনের জন্য পুরুষ প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উচ্চতা ১.৬৮ মিটার (৫ ফুট ৬ ইঞ্চি), ওজন ৪৯.৯০ কেজি (১১০ পাউন্ড), বুকের মাপ স্বাভাবিক অবস্থায় ০.৭৬ মিটার (৩০ ইঞ্চি), প্রসারণ অবস্থায় ০.৮১ মিটার (৩২ ইঞ্চি) থাকতে হবে। মহিলা প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উচ্চতা ১.৬০ মিটার (৫ ফুট ৩ ইঞ্চি), ওজন ৪৭ কেজি (১০৩ পাউন্ড), বুকের মাপ স্বাভাবিক অবস্থায় ০.৭১ মিটার (২৮ ইঞ্চি), প্রসারণ অবস্থায় ০.৭৬ মিটার (৩০ ইঞ্চি) থাকতে হবে।

            বৈবাহিক অবস্থা: প্রার্থীদের অবশ্যই অবিবাহিত হতে হবে (তালাকপ্রাপ্ত নয়)।

            সাঁতার: সাঁতার জানা অত্যাবশ্যক (ন্যুনতম ৫০ মিটার)।

            সেনাবাহিনীতে চাকুরীর সুযোগ-সুবিধা : নির্ধারিত স্কেলে বেতন, ভাতা এবং পেনশনসহ বিনামূল্যে আহার ও বাসস্থান, নিজ, পরিবারবর্গ এবং পিতা-মাতা/শ্বশুর-শ্বাশুরীর জন্য সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসার সুবিধা, বিনামূল্যে সরকারী পোশাক পরিচ্ছদ, নিজ ও পরিবারবর্গের জন্য ভর্তুকি মূল্যে রেশন প্রদান, সেনাবাহিনী কর্তৃক পরিচালিত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সন্তানদের জন্য যোগ্যতা সাপেক্ষে উচ্চ শিক্ষার সুযোগ।

            নির্বাচন পদ্ধতি : লিখিত পরীক্ষা (বাংলা, ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞান), শারীরিক পরীক্ষা এবং মৌখিক পরীক্ষার মাধ্যমে যোগ্য প্রার্থী নির্বাচন করা হবে।

            ভর্তি পরীক্ষার সময় অবশ্যই বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত সনদপত্র/ছবি/পে-অর্ডার/ব্যাংক ড্রাফট/লেখার সামগ্রী সঙ্গে আনতে হবে।
            সেনাবাহিনী নিয়োগ 2019 সার্কুলার

            সেনাবাহিনী বেসামরিক নিয়োগ ২০১৯




            বাংলাদেশ সেনাবাহিনী বেসামরিক নিয়োগ ২০১৯ সংক্রান্ত আপাতত নতুন কোনো সার্কুলার নেই।নতুন কোনো বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হলে তা এখানে শেয়ার করা হবে 

            সেনাবাহিনীর অফিসার পদে নিয়োগ



            বাংলাদেশ সেনাবাহিনী অফিসার নিয়োগ ২০১৯ অনুযায়ী বর্তমানে চালু রয়েছে ৭৪ তম ডিএসএসসি (এএমসি) পুরুষ/মহিলা সার্কুলারটি।  এতে উপযুক্ত পুরুষ ও মহিলা প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবেন। তবে এটি সেনাবাহিনীর একটি মেডিক্যাল অফিসার পোস্ট। প্রার্থীদের অবশ্যই এমবিবিএস পাশ হতে হবে। চাকরি নিশ্চিত হওয়ার পর প্রার্থীরা সরাসরি ক্যাপ্টেন পদে কমিশন প্রাপ্ত হবেন।

            সেনাবাহিনীর অফিসার পদে নিয়োগ পেতে হলে ন্যুনতম কিছু যোগ্যতার প্রয়োজন হয়। নিম্নে বিষয়গুলো বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।
            • শারীরিক যোগ্যতা (ন্যুনতম):
            • শারীরিক যোগ্যতা পুরুষ মহিলা
              উচ্চতা ৫'৪" ৫'২"
              ওজন ৫৭ কেজি ৪৯ কেজি
              বুক স্বাভাবিক ৩০'
              প্রসারণ ৩২'
              স্বাভাবিক ২৮'
              প্রসারণ ৩০'
            • শিক্ষাগত যোগ্যতা (ন্যুনতম): মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক/সমমানের পরীক্ষায় জিপিএ ৫ এবং এমবিবিএস ও ইন্টার্ন সম্পন্ন
            • বৈবাহিক অবস্থা : অবিবাহিত/বিবাহিত
            • জাতীয়তা : জন্মসূত্রে বাংলাদেশী নাগরিক।
            আবেদন পদ্ধতি
            সেনাবাহিনীর কমিশন্ড অফিসার পদে নিয়োগের জন্য অনলাইনে আবেদন শুরু হয়েছে ২৮শে জুন। অফিসার পদে নিয়োগের সর্বশেষ বিজ্ঞপ্তি দেখতে এবং অনলাইনে আবেদন করতে ভিজিট করুন https://joinbangladesharmy.army.mil.bd

            পরীক্ষা পদ্ধতি
            সফলভাবে আবেদন সম্পন্ন করার পর প্রার্থীদের তৎক্ষণাৎ লিখিত পরীক্ষার জন্য কলআপ লেটার দেয়া হবে। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের শারিরীক ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে। এরপর চুড়ান্তভাবে আইএসএসবি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে। মেধাক্রম অনুযায়ী উত্তীর্ণদের ২০ সপ্তাহব্যাপী প্রশিক্ষণ দেয়ার পর ক্যাপ্টেন পদে কমিশন দেয়া হবে।

            আরো বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞপ্তিতে।
            সেনাবাহিনীর অফিসার নিয়োগ ২০১৯
            এছাড়াও ৫৩তম বিএমএ স্পেশাল কোর্স ইঞ্জিনিয়ারস/সিগন্যালস/ইএমই/এইসি এবং ৪৬তম ডিএসএসসি (আরভিএন্ডএফসি) বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। এটিও সেনাবাহিনীর অফিসার পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি।

            অফিসার পদের উভয় বিজ্ঞপ্তির জন্য প্রযোজ্য বয়স ১লা জানুয়ারি ২০২০ সালে অনুর্ধ ২৮ বছর।

            উভয় পদে আবেদনের শেষ তারিখ ২০শে জুলাই ২০১৯।

            সেনাবাহিনী অফিসার নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯




            Monday, 1 July 2019

            July 01, 2019

            পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 এবং চূড়ান্ত ফলাফল দেখুন

            পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি
            পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ প্রকাশিত হয়েছে। পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 এর জন্য যারা অপেক্ষমান ছিলেন তারা এবার সুযোগ পেয়েছেন পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ এর শূন্যপদে আবেদন করার।

            সরকারি চাকরি প্রার্থীদের নিকট স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি বেশ জনপ্রিয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি। এজন্যই সরকারি চাকরি প্রার্থীদের কথা বিবেচনা করে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 এবং পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 ফলাফল গুরুত্বসহকারে প্রকাশ করা হয়েছে সমকাল ব্লগে। আরো পড়ুন বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯

            পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর হলো স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় এর অধীনস্থ একটি সরকারি প্রতিষ্ঠান। উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ এবং পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ 2019 সম্পর্কে সর্বশেষ খবর জানতে নিয়মিত পড়ুন সমকাল ব্লগ।

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯




              স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের নিয়ন্ত্রণাধীন ৪র্থ স্বাস্থ্য,জনসংখ্যা ও পুস্টি সেক্টর কর্মসূচির আওতাধীন ক্লিনিক্যাল কন্ট্রাসেপশন সার্ভিসেস ডেলিভারি প্রোগ্রাম শীর্ষক অপারেশন প্ল্যানের মেয়াদকালিন (জুলাই ২০১৭-জুন ২০২২) সময়ের জন্য উন্নয়ন খাতে সৃষ্ট নিম্নবর্ণিত পদসমূহ পূরনের জন্য উপযুক্ত বাংলাদেশী নাগরিকদের কাছে দরখাস্ত আহ্বান করেছে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর।

              অর্থাৎ এটি একটি প্রকল্প ভিত্তিক চাকরি। প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হলে চাকরির মেয়াদ শেষ হয়ে যাবে। প্রকল্পের মেয়াদ জুন ২০২২ সাল পর্যন্ত।

              পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ 2019 বিজ্ঞপ্তিটি প্রচারিত হয়েছে দৈনিক অবজারভার, দৈনিক যুগান্তর এবং bdjobs.com এ

              পদের নাম : সিনিয়র স্টাফ নার্স (মহিলা)
              পদ সংখ্যা : ১৪ টি
              বেতন : গ্রেড ১০। ২৪,৭০০-২৭,১০০
              যোগ্যতা : তিন বছর মেয়াদী ডিপ্লোমা ইন নার্সিং

              পদের নাম : স্টোর কিপার
              পদ সংখ্যা : ১ টি
              বেতন : গ্রেড ১৪। ১৮,৩০০
              যোগ্যতা : স্নাতক বা সমমান

              আবেদনের শেষ সময় ১৭/০৭/২০১৯। এই সময়ের মধ্যে আবেদনপত্র ডাকযোগে অথবা সরাসরি নির্ধারিত ঠিকানায় পৌঁছাতে হবে। আবেদনকারীদের বয়স উক্ত সময়ে ১৮-৩০ বছরের মধ্যে হতে হবে। বিশেষ ক্ষেত্রে আবেদনের সর্বোচ্চ বয়স ৩২ বছর।
              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ 2019

              পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ 2019
              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকে সরাসরি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ডাউনলোড করুন।

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019




              ৮ই জানুয়ারি প্রকাশিত হয়েছিলো পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019। এরপর পুনরায় প্রকাশিত হয়েছে পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 যা উপরে আলোচিত হয়েছে। ৮ই জানুয়ারির বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী অস্থায়ী পদে ১৮ জনকে সরবরাহ কর্মকর্তা পদে নিয়োগ দিয়েছে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর। পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ 2019 এর বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরাধীন উপকরণ ও সরবরাহ ইউনিটে ৪র্থ স্বাস্থ্য,জনসংখ্যা ও পুষ্টি সেক্টর কর্মসূচির আওতায় প্রকিউরমেন্ট,স্টো‌রেজ এন্ড সাপ্লাই ম্যানেজমেন্ট অপারেশন প্ল্যানের নিম্নবর্ণিত পদে সম্পূর্ণ অস্থায়ী ভিত্তিতে জনবল নিয়োগের নিমিত্ত বাংলাদেশের স্থায়ী নাগরিকদের নিকট হতে সরকার নির্ধারিত চাকুরির আবেদন ফরমে দরখাস্ত আহ্বান করা যাচ্ছে।
              • পদের নাম : সরবরাহ কর্মকর্তা (অস্থায়ী)
              • পদের সংখ্যা : ১৮ জন
              • বেতন : ১৬০০০-৩৮৬৪০ ১০ম গ্রেড
              • বয়স সীমা : ১৮-৩০ বছর (বয়সের ক্ষেত্রে সরকারের সর্বশেষ নীতিমালা অনুসরণ করা হবে
              • আবেদনের যোগ্যতা : কোনো স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় হতে ২য় শ্রেণীর স্নাতক অথবা সমমানের শিক্ষাগত যোগ্যতা
              • অভিজ্ঞতা : পণ্য পরিবহন,গুদামজাতকরণ ও পন্য ক্লিয়ারিং এ তিন বছরের বাস্তব অভিজ্ঞতা
              • আবেদন ফি : সার্কুলারে বর্ণিত নিয়মে ২০০ টাকা ট্রেজারি চালান করতে হবে।

              চাকরি প্রার্থীকে অবশ্যই নির্দিষ্ট ঠিকানায় ০৭/০২/১৯ তারিখের মধ্যে আবেদন পত্র পৌঁছাতে হবে।আবেদন পত্রে কোনো ভুলত্রুটি হলে তা বাতিল করা হবে।

              আবেদনপত্রের সাথে যেসকল কাগজপত্র দাখিল করতে হবে
              1. সদ্য তোলা ৪ কপি পাসপোর্ট সাইজের সত্যায়িত ছবি
              2. শিক্ষাগত যোগ্যতার সকল সনদপত্রের সত্যায়িত ফটোকপি
              3. প্রথম শ্রেণীর গেজেটেড কর্মকর্তা কতৃক প্রদত্ত চারিত্রিক সনদপত্র
              4. ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা কতৃক প্রদত্ত নাগরিক সনদপত্র
              5. অভিজ্ঞতা সনদপত্র
              6. জাতীয় পরিচয়পত্রের সত্যায়িত কপি
              7. জন্ম সনদের সত্যায়িত কপি

              বিজ্ঞপ্তিটি ইতোমধ্যে মেয়াদোত্তীর্ণ হয়েছে। পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 pdf ডাউনলোড করুন

              পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2019 আবেদন ফরম ডাউনলোড





              বর্তমান বিজ্ঞপ্তিতে সরকার নির্ধারিত চাকুরির আবেদন ফরমে অর্থাৎ পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর আবেদন ফরম এ আবেদন করতে হবে  এরকম সুনির্দিষ্ট তথ্য দেয়া হয়নি। কাজেই হাতে লেখা দরখাস্ত প্রেরণ করা যাবে। খামের উপরে পদের নাম এবং নিজ জেলা উল্লেখ করতে হবে।পরিবার পরিকল্পনা আবেদন ফরম ডাউনলোড করুন পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট www.dgfp.gov.bd থেকে।

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ গাইড

              পরিবার পরিকল্পনা পরীক্ষা প্রস্তুতি নেয়ার জন্য পরিবার পরিকল্পনা প্রশ্ন সম্পর্কে ধারণা থাকা জরুরী।

              পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ প্রশ্ন সম্পর্কে সঠিক ধারণা পেতে অবশ্যই ভালো মানের একটি গাইড ফলো করা উচিত। বিগত সালের পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন পড়লে অবশ্যই পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন ২০১৯ সম্পর্কে সুস্পষ্ট ধারণা পাওয়া যাবে। পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ গাইড PDF পাওয়া যায়না তবে রকমারি ডট কম থেকে সহজেই প্রফেসরস প্রকাশনের জেনুইন পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগ গাইড সংগ্রহ করা যাবে।এছাড়াও রয়েছে কেয়ার পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ গাইড(এমসিকিউ-রচনামূলক-ভাইভা)।বইগুলোতে পাওয়া যাবে পরিবার পরিকল্পনা প্রশ্ন সমাধান।

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ admit card




              বর্তমান বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরে নিয়োগের জন্য লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে প্রার্থীদের। আবেদন করার পরে বাছাইকৃত প্রার্থীদের পরীক্ষার জন্য প্রবেশ পত্র ডাউনলোড করার তথ্য পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটের মাধ্যমে এবং এসএমএসের মাধ্যমে জানানো হবে।

              পরিবার পরিকল্পনা নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ ফলাফল 

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরাধীন উপকরণ ও সরবরাহ ইউনিটে ৪র্থ স্বাস্থ্য,জনসংখ্যা ও পুষ্টি সেক্টর কর্মসূচির আওতায় প্রকিউরমেন্ট,স্টো‌রেজ এন্ড সাপ্লাই ম্যানেজমেন্ট অপারেশন প্ল্যানের ১৮ জন সরবরাহ কর্মকর্তা নিয়োগের (১০ গ্রেড) চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করেছে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর।

              পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০১৯ ফলাফল


              ২০/০৫/১৯ তারিখে এ চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে dgfp ওয়েবসাইটে।ফলাফল দেয়া হলো।